করোনার ভ্যাকসিন নিতে গিয়ে এই ভদ্রমহিলা যা করলেন হেসে লুটোপুটি সকলে! তুমুল ভাইরাল হল ভিডিও।

নিজস্ব প্রতিবেদন :-ম-হা-মা-রী-র ক-ব-লে রীতিমতো স্তব্ধ হয়ে গিয়েছিল সবকিছু । জনমানবহীন হয়ে গিয়েছিল রাস্তাঘাট । উপায় ছিল একটাই যদি কোনো কারণে ভ্যাকসিন আবিষ্কার করা যেত তাহলে কমিয়ে ফেলা যেত সংক্রমণ । বিজ্ঞানীরা ভ্যাকসিন আবিষ্কার এর জন্য দিনরাত এক করে গবেষণা করতে থাকে ।

অবশেষে ভারত বর্ষ ভ্যাকসিন আবিষ্কার করে ফেলে । আর তারপর থেকেই আশার আলো দেখতে পাই সমস্ত দেশবাসীর । ভ্যাকসিন আবিষ্কার হওয়ার পর থেকে দ্রুত হারে পরীক্ষা-নিরীক্ষা করে সেটি বাজারে আনা হয় এবং ভ্যাকসিন দেওয়ার প্রক্রিয়া শুরু করা হয় ।।

ভ্যাকসিন দেওয়ার প্রক্রিয়া গোটা দেশজুড়ে যত বাড়ছে ততোই সোশ্যাল মিডিয়াতে উঠে আসছে এমন কিছু ধরনের হাস্যকর মুহূর্ত যেগুলো দেখে দমফাটা হাসির পরিবেশ সৃষ্টি হচ্ছে । আমাদের মধ্যে এমন অনেকেই আছেন যারা ইনজেকশনে ভ-য় পায় প্রবল পরিমাণে । তারা কিভাবে ভ্যাকসিন নেবে তা হয়তো আপনারা কিছুটা হলেও আন্দাজ করতে পারছেন । কিন্তু এমন কিছু মানুষ রয়েছে যারা ভ্যাকসিন নেওয়ার সময় অতিরিক্ত কিছু অঙ্গভঙ্গি করে বা মুখের বিকৃতি করে যা থেকে সৃষ্টি হয় হাসির পরিবেশ । এই ঘটনা সেরকমই কিছু একটা বলতে পারেন ।

আমাদের এলাকার আশেপাশে মিউনিসিপ্যালিটি শহর-গ্রামে প্রতিনিয়ত দ্রুতহারে ভ্যাকসিনের প্রক্রিয়া চালানো হচ্ছে । লক্ষ লক্ষ মানুষ প্রতিদিন ভ্যাকসিন নিচ্ছে । এই ঘটনা দেখা যাচ্ছে যে এক মহিলার নাম মমতা । তিনি ভ্যাকসিন নিতে গিয়েছেন ভ্যাকসিন সেন্টারে ।কিন্তু তার ইনজেকশনের প্রচুর পরিমাণে ভ-য় ।

তাই ইনজেকশন দেওয়ার আগেই তার মুখের ভঙ্গিমা এমনই ছিল যা দেখলে আপনি নিজে হাসতে শুরু করবেন । কিন্তু অবাক করার মতন কান্ড হচ্ছে কখন যে ইনজেকশন ভ্যাকসিন দেওয়া হয়ে গেছে তা তিনি টের পাননি তিনি হয়তো ভাবছেন এরপর ইঞ্জেকশন তাকে দেওয়া হবে ।কিন্তু এতক্ষণে ভ্যাকসিন প্রক্রিয়া সম্পূর্ণ শেষ হয়ে গেছে । যার ফলে তিনি অবাক হয়েছিলেন কিছুটা পরিমাণে ।তবে তার অঙ্গভঙ্গি দেখে হাসির পরিবেশ সৃষ্টি হয়েছে যা ছড়িয়ে পড়েছে সমস্ত সোশ্যাল মিডিয়াতে ।

Back to top button