“কি দাদারা খেলা হবে তো নাকি”! স্বামী নীলের সাথে প্রচারে বেরিয়ে ঝ-ড় তু’ললেন নীল-তৃনা, ভাইরাল ভিডিও!

নিজস্ব প্রতিবেদন :- এবারের বিধানসভা ভোট হাড্ডাহাড্ডি হবে তা আমরা আগে থেকে জানতাম । এবং ঠিক তেমনি চিত্র ফুটে উঠেছে গত চার দফা ভোটের । দীর্ঘ ১০ বছর ধরে ক্ষ-ম-তায় রয়েছে তৃণমূল কংগ্রেস একাধিক যাবতীয় কাজকর্ম করেছেন পশ্চিমবঙ্গের জন্য । এমনকি মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দোপাধ্যায়ের অনুপ্রেরণায় তৈরি হওয়া কন্যাশ্রী এবং সবুজ সাথী প্রকল্প বিশ্বদরবারে সম্মানিত হয়েছে । কিন্তু এর পরও সেই বাংলার ওপর চোখ পড়েছে বাংলা এবং বাঙালি বি-রোধী বিজেপি সরকারের । তাই তারা যেনতেন প্রকারে এসে বাংলা দ-খল ক-রতে চা-য় ।

এবং তার জন্য তারা প্রস্তুতিতে কোনো খা-মতি রা-খেনি। প্রত্যেক দল নিজের প্রচারে নেমে পড়েছে ইতিমধ্যে । কিন্তু এবার একটি লক্ষণীয় বিষয় হল এক ঝাঁক তারকাদের মুখ । তৃণমূল কংগ্রেস এবং বিজেপি উভয় এবারে প্রার্থী করেছে বেশিরভাগ ক্ষেত্রে নতুন রাজনীতিতে আগত তারকাদের। তবে মাঝেমধ্যেই ছন্দ-প-তন ঘটেছে বেশকিছু প্রার্থীর । বিভিন্ন জায়গায় ইতিমধ্যে প্রার্থী তালিকা ঘোষণা হবার পর দেখা গেছে ক্ষো-ভ ও অ-শান্তি । তবে সম্প্রতি তৃণমূল কংগ্রেসে যোগ দিয়েছেন আরও এক তারকা দম্পতি যাদের নাম নীল ও তৃণা ।

বেশ কিছুদিন আগে তারা বিবাহ ব-ন্ধনে আ-বদ্ধ হয়েছিল । তখন গোটা সোশ্যাল মিডিয়াতে শো-র-গো-ল প-ড়ে গি-য়েছিল । তার পাশাপাশি নীল এবং তৃণার জনপ্রিয়তা অন্যান্য বাকি সকল ধারাবাহিক তারকাদের থেকে বেশি । কাজেই তৃণমূল কংগ্রেসের যে এটি একটি বড় চাল বা মাস্টার স্ট্রোক হতে চলেছে । এমনটা বলা যেতেই পারে । ভোটের মুখে এই ধরনের যোগদান নিতান্তই বেশ গুরুত্বপূর্ণ বলে মনে করছেন অনেকেই । এমনকি চি-ন্তার ভাঁ-জ পড়েছে বি-রোধী-দ-লের কপালেও । ইতিমধ্যেই চতুর্থ দফার ভোট শেষ হয়ে গিয়েছে । এবং পঞ্চম দফার ভোট শুরু হতে চলেছে ।

কিন্তু এরই মাঝে ফের আরও একবার মদন মিত্রের সমর্থনে প্রচার করলে অভিনয় জগতের সব থেকে মিষ্টি জুটি নীল এবং তৃণা । সম্প্রতি ইউটিউবে ভিডিও প্রকাশিত হয়েছে সেখানে দেখা যাচ্ছে মদন মিত্রের সমর্থনে নিন এবং তৃণা বক্তব্য রাখছেন একটি মঞ্চ থেকে । নীলের পরনে ছিল পাঞ্জাবি এবং তৃণার পরনে ছিল একটি সালোয়ার-কামিজ । খেলা হবে গানটি সাথে যেমন এর আগে তাদের নাচতে দেখা গেছে ঠিক তেমনি এবার সাধারণ মানুষের উদ্দেশ্যে প্রশ্ন করতে দেখা গেছে তাদেরকে বলতে শোনা গেছে কি দাদা খেলা হবে তো ? অর্থাৎ এমনটা বলা যেতে পারে যে তৃণমূল কংগ্রেসের জয় সম্পর্কে তারা নিশ্চিত ।

Back to top button