মাত্র 1 লক্ষ টাকা দিয়ে এই ব্যবসা শুরু করুন, প্রতি মাসে রোজগার হবে 40,000 টাকা! জানুন বিস্তারিত।

নিজস্ব প্রতিবেদন :- বর্তমানে বহু মানুষ রয়েছে যারা ব্যবসায় মনোনিবেশ করেছে কারণ ৫-৭ বছর চাকরির জন্য পড়াশোনা করার পরও যখন পড়ুয়ারা চাকরি পাচ্ছে না তখন তারা মা-নসিক অ-বসাদগ্রস্ত হয়ে পড়ছে । এই মুহূর্তে রাজ্যের যে পরিস্থিতি তথা গোটা ভারতবর্ষে যে পরিস্থিতি তাতে যত বেকারত্বের সংখ্যা রয়েছে তার সংখ্যা প্রতিদিনই বেড়ে চলেছে । তাই বিকল্প পথ হিসেবে মানুষ ব্যবসায় মনোনিবেশ করছে ।

কিন্তু কি ধরনের ব্যবসা করা যেতে পারে এই প্রশ্ন বারবার তাদেরকে চিন্তায় ফেলে দিচ্ছেন । তবে আজকের প্রতিবেদন আপনাদেরকে জানাবো এমন একটি ব্যবসার কথা যেটি বিনিয়োগ মাত্র এক লক্ষ টাকা এর পাশাপাশি প্রতি মাসে প্রায় ৪০ থেকে ৫০ হাজার টাকা উপার্জন করতে পারবেন । অনেকেই বেকারি শিল্পের প্রতি মনোযোগ দিয়েছে । পারলে জি বিস্কুট হচ্ছে এমন এক ধরনের বিস্কুট জাগত ৮২ বছরের রেকর্ড ভে-ঙে দিয়েছে । তাই এই ধরনের ব্যবসা শুরু করার ক্ষেত্রে আগ্রহ প্রকাশ করেছে অনেকেই।

চাইলে আপনিও এই ধরনের ব্যবসা শুরু করতে পারবেন আপনার নিজের পকেট থেকে মাত্র এক লক্ষ টাকা দিতে হবে। বাকি টাকা কেন্দ্রীয় সরকার আপনাকে লোন হিসেবে প্রদান করবেন এবং এই লোন মূলত মুদ্রা প্রকল্পের অধীনে পালন হবে যেটাকে আপনাকে পাঁচ বছরের মধ্যে শোধ করে দিতে হবে । কেন্দ্রীয় সরকারের এই প্রকল্পে আবেদন করার জন্য, মুদ্রা প্রকল্পের অধীনে যে কোনও ব্যাঙ্কে আবেদন করা যেতে পারে। একটি ফর্ম দেওয়া হবে, যেখানে নিজের সম্বন্ধে বিশদ নথি পূরণ করতে হবে। নাম, ঠিকানা, শিক্ষা, বর্তমান আয় ও লোনের পরিমাণ লিখে দিতে হবে।

লোনের জন্য কোনও প্রসেসিং ফি বা গ্যারান্টি ফি দিতে হবে না। ৫ বছর সময়ের মধ্যে লোন শোধ করা যাবে। বেকারি শিল্প স্থাপনের জন্য মোট খরচ হবে ৫.৩৬ লক্ষ টাকা। এ ক্ষেত্রে ব্যবসায়ীকে দিতে হবে মাত্র ১ লক্ষ টাকা। কেন্দ্রীয় সরকারের মুদ্রা প্রকল্পের জন্য নির্বাচিত হওয়ার পর ব্যাঙ্ক থেকে ২.৮৭ লক্ষ টাকার একটি মেয়াদি লোন ও ১.৪৯ লক্ষ টাকার ক্যাপিটাল লোন পাওয়া যাবে। ৫০০ বর্গমিটারের জায়গার প্রয়োজন রয়েছে। বার্ষিক প্রায় সাড়ে তিন লাখ থেকে চার লক্ষ টাকা উপার্জন করতে পারে এবং মাসিক প্রায় ৪০,০০০ টাকা মতন উপার্জন হতে পারে এই ব্যবসা থেকে ।

Back to top button