বড়সড় পরিবর্তন করা হলো আধার কার্ডের বেশ কিছু নিয়মে! স্বস্তির নিঃশ্বাস সাধারণ মানুষের! জানুন বিস্তারিত।

নিজস্ব প্রতিবেদন :- উৎসবের মরসুম শুরু হওয়ার আগেই আধার কার্ডের নিয়মাবলীর ক্ষেত্রে বড়োসড়ো পরিবর্তন নিয়ে আসা হলো। এই নতুন নিয়মের ফলে সাধারণ মানুষের কতটা সুবিধা হবে তা কিছু সময় অন্তর জানা যাবে। আসুন এক ঝলকে জেনে নেওয়া যাক কি কি বলা হয়েছে এই নতুন নিয়মে। প্রসঙ্গত NPCI-IAMA-র দ্বারা সংগঠিত Global Fintech Fest-এ UIDAI-এর CEO সৌরভ গর্গ এই নতুন নিয়ম প্রসঙ্গে বিশেষ কিছু তথ্য জারি করেছেন।

তার কথা অনুযায়ী আর্থিক প্রযুক্তি ক্ষেত্রে আধার কার্ড কে ব্যবহার করার বহু সুযোগ রয়েছে। এছাড়াও সৌরভ গর্গ বলেছেন, আধার কার্ডের প্রতিটি ভেরিফিকেশন খরচ কমিয়ে দেওয়া হয়েছে। 20 টাকা থেকে কমিয়ে 3 টাকা করা হয়েছে এই খরচ।যাতে বিভিন্ন সংস্থা এবং প্রতিষ্ঠান সরকারের তৈরি ডিজিটাল পরিকাঠামো আরও ভালোভাবে ব্যবহার করতে পারে সেই উদ্দেশ্যেই এই খরচ কমিয়ে দেওয়া হয়েছে।

পাশাপাশি এই খরচ কমিয়ে দেওয়ার কারণে অনেক সাধারণ মানুষেরও সুবিধা হবে। সৌরভ গর্গ বলেছেন,”৯৯ কোটি e-KYC-র জন্য আধার ব্যবহার করা হয়েছে। UIDAI কারও সঙ্গে বায়োমেট্রিক তথ্য শেয়ার করেনা এবং তারা আশা করে যে অন্যান্য সকল কর্তৃপক্ষ সরকারের মতোই নিরাপত্তা এবং গোপনীয়তা বজায় রাখবে। আধার কার্ড পাওয়ার জন্য কোনও টাকা দিতে না হলেও আধার কার্ডে নাম, ঠিকানা সহ অন্যান্য তথ্য বদল করতে টাকা দিতে হবে সাধারণ মানুষকে।

তথ্য সংক্রান্ত বদলের ক্ষেত্রে ৫০ টাকা এবং বায়োমেট্রিক সংক্রান্ত বদলের ক্ষেত্রে ১০০ টাকা দিতে হবে সবাইকে”।উল্লেখ্য এই মুহূর্তে দেশের মধ্যে আধার কার্ড একটি অতি গুরুত্বপূর্ণ নথি। নাগরিকত্বের পরিচয় বহন করার পাশাপাশি সরকারের বেশির ভাগ প্রকল্প এই কার্ডের সাথে যুক্ত। যেকোন ক্ষেত্রেই সাধারণ মানুষকে এই আধার কার্ড দেখাতে হয়। সেই কারণেই এই কার্ড এর সঠিক ব্যবহার বজায় রাখা প্রয়োজন। অতি অবশ্যই যাতে পরিকাঠামো আরও উন্নত হয় তাই এই ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে তাতে সন্দেহ নেই। বিস্তারিত জানতে আমাদের পরবর্তী প্রতিবেদন গুলিতে নজর রাখতে থাকুন।

Back to top button