“আমার হাতে গোটা পৃথিবী ছেড়ে গেলে, আমি কি করে বাঁচবো?” – সিদ্ধার্থের শেষ যাত্রায় কা’ন্নায় ভে’ঙে পড়লেন শেহনাজ!

নিজস্ব প্রতিবেদন :- মাত্র ৪০ বছর বয়সেই থেএই গেল তার জীবনযাত্রা । হয়তো তিনি নিজেও এমনটা কল্পণা করতে পারেনি ।মানুষের কখন কি হয় তা আমরা আগে থেকে অনুধাবন করতে পারিনা । মুহূর্তের মধ্যে বন্ধ হয়ে যেতে পারে আমাদের জীবনযাত্রা । এই ঘটনার প্রমাণ আমরা বহুবার পেয়েছি । এবং আগামী দিনে যাতে এই ঘটনা প্রমাণ না পেতে হয় তার কামনা করব আমরা ।প্রতিটি মানুষ বেঁচে থাকুক এই পৃথিবীর বুকে।

জনপ্রিয় অভিনেতা সিদ্ধার্থ শুক্লা অকাল প্রয়াণে রীতিমতো শোকের ছায়া নেমে এসেছে গোটা অভিনয় জগতে বলিউড-টলিউড প্রতিনিয়ত গভীরতা পাচ্ছে । সিদ্ধার্থ শুক্লা ১০ ডিসেম্বর ১৯৮০ সালে জন্ম নেন । তিনি মুম্বইয়ের একজন ভারতীয় টেলিভিশন অভিনেতা মডেল এবং উপস্থাপক ছিলেন। তিনি ২০০৮ সালের ধারাবাহিক বাবুল কা অঙ্গন ছুটে নায় অভিনয়ের মাধ্যমে টেলিভিশন জগতে অভিষেক করেছিলেন। অতঃপর তিনি লাভ ইউ জিন্দেগী,

বালিকা বধু এবং দিল সে দিল তাকের মতো ধারাবাহিকের মূল চরিত্রে অভিনয় করার মাধ্যমে জনপ্রিয়তা অর্জন করেছিলেন। এছাড়াও তিনি ঝলক দিখলা যা ৬, ফিয়ার ফ্যাক্টর: খাত্রোঁ কে খিলাড়ি ৭ এবং বিগ বস ১৩-এর মতো রিয়্যালিটি অনুষ্ঠানে অংশগ্রহণ করেছিলেন; যার মধ্যে ফিয়ার ফ্যাক্টর: খাত্রোঁ কে খিলাড়ি ৭-এর শিরোপা জয়লাভ করেছিলেন। সিদ্ধার্থের মৃ-ত্যুর খবর পেয়ে তার বাড়িতে ছুটে যায় তার প্রেমিকা শাহেনশা ।

রীতিমতো কান্নায় ভেঙে পড়েছেন তিনি । একা হয়ে গেছে এই গোটা পৃথিবীতে । এবং সেই কথা তিনি বারবার উচ্চারিত করছেন ।তিনি বলছেন যে সে এই পৃথিবীতে আমাকে একা করে দিয়ে চলে গেল । তার এই মৃ-ত্যু কোন রকম ভাবে আমি মেনে নিতে পারছি না । আমার কাছে সে আমার পৃথিবী ছিল । বুকফা-টা কা-ন্নায় ভে-ঙে পড়তে দেখা গেল তার প্রেমিকাকে নেট দুনিয়াকে জনতাদের আরো আবেগপ্রবণ করে তুলেছে ।

Back to top button