বাংলার বিভিন্ন জেলা থেকে 3,000 আশা কর্মী নিয়োগ! আবেদন করতে হবে অনলাইনে! জানুন বিস্তারিত।

নিজস্ব প্রতিবেদন :- পশ্চিমবঙ্গ রাজ্য সরকার প্রতিনিয়ত নিয়োগের সংখ্যা বাড়িয়ে চলেছে এবং চেষ্টা করছে বেকারত্বের সংখ্যা যাতে কমিয়ে আনা যায় । বেশ কিছুদিন আগে পশ্চিমবঙ্গ সরকারের তরফ থেকে একটি বিজ্ঞপ্তি জারি করা হয়েছিল যেখানে তারা যেখানে জানানো হয়েছিল এ খুব শিগগিরই বিপুলসংখ্যক আশা কর্মী নিয়োগ করা হবে রাজ্যের বুকে এবার সেই বিজ্ঞপ্তি জারি করা হলো প্রাথমিকভাবে ।

সম্প্রতি রাজ্য সরকারের তরফ থেকে জানানো হয়েছিল যে আগামী কয়েকদিনের মধ্যেই ১৩০০০ আশা কর্মী নিয়োগ করা হবে গোটা রাজ্যজুড়ে । ইতিমধ্যে সেই বিল পাশ হয়ে গেছে অর্থাৎ অনুমোদিত হয়ে গেছে । এছাড়া হাওড়া ডুমুর জেলা স্টেডিয়াম ৩০ বছরের থেকে বাড়িয়ে ৯৯ বছরের জন্য লিজ নেওয়ার কথা অনুমোদিত হয়েছে ।

এছাড়া পশ্চিমবঙ্গ রাজ্য সরকারের তরফ থেকে জানানো হয়েছে যে আগামী কয়েক বছরের মধ্যেই মোটা রাজ্যজুড়ে ৪৫০০ উপস্বাস্থ্য কেন্দ্র এবং ৩০০০ সুস্বাস্থ্য কেন্দ্র তৈরি করা হবে । আসুন দেখে নেই নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি সম্পর্কে বিস্তারিত তথ্য শিক্ষাগত যোগ্যতা বয়স মাসিক বেতন কি কাজ এবং কিভাবে আবেদন করব কোন জেলা থেকে কতজন আবেদন করতে পারবে এই সমস্ত খুঁটিনাটি তথ্য ।

পদের নাম :- আশা কর্মী । শূন্যস্থান পদের সংখ্যা:- ১৩০০০

বয়স :- আবেদনকারীদের বয়স হতে হবে ৩০ থেকে ৪০ বছরের মধ্যে। এবং তপশিলি জাতি বা তপশিলি উপজাতি প্রার্থীদের ক্ষেত্রে বয়স হতে হবে ২২ থেকে ৪০ বছরের মধ্যে।

যোগ্যতা :- আবেদনকারীকে অবশ্যই মহিলা হতে হবে। কেবল বিবাহিতা/ বিধবা/ আইনগতভাবে বিবাহ বিচ্ছিন্না মহিলারাই আবেদনযোগ্য। আবেদনকারীকে অবশ্যই সংশ্লিষ্ট গ্রামের স্থায়ী বাসিন্দা হতে হবে।
আবেদনকারী গ্রেড- ওয়ান এবং গ্রেড- টু স্বনির্ভর গোষ্ঠীর সদস্যা হয়ে থাকলে অগ্রাধিকার পাবেন ।

মাসিক বেতন :- বর্তমানে আশা কর্মীদের প্রতিমাসে বেতন ৫,৫০০/- টাকা।

আশা কর্মীদের কাজ :- আশা কর্মীদের মূল কাজ হলো এলাকার স্বাস্থ্য বিষয়ে নজর রাখা। সংশ্লিষ্ট গ্রামের কতজন মহিলা গর্ভবতী, তার সম্পূর্ণ তালিকা তৈরী করা। ওইসব গর্ভবতী মহিলারা পুষ্টি জাতীয় খাবার খাচ্ছেন কিনা তা খোঁজ রাখা। পাশাপাশি গর্ভবতী মহিলারা সময় মতো টিকা পাচ্ছেন কিনা তার খেলায় রাখতে হয় এলাকার আশা কর্মীদের। সদ্যজাত শিশু জন্ম গ্রহণের পর শিশুটি সঠিক সময়ে টিকা বা পোলিও পাচ্ছে কিনা তার খেয়াল রাখতে হয় আশা কর্মীদের।

আবেদন পদ্ধতি :- আশা কর্মীদের কে অফলাইনে আবেদন করতে হবে । জন্ম তারিখের শংসাপত্র অথবা মাধ্যমিক পরীক্ষার এডমিট কার্ড। স্থায়ী বাসিন্দা প্রমাণপত্র হিসেবে ভোটার কার্ড বা রেশন কার্ড। জাতিগত প্রমাণপত্র ।আবেদনকারীর স্বনির্ভর গোষ্ঠীর সদস্যা হলে তার প্রমানপত্র। আবেদনকারীর দু’কপি পাসপোর্ট সাইজের রঙিন ফটো। ইত্যাদি নিয়ে আবেদন পত্র পূরণ করতে হবে এবং অফলাইনে তাদেরকে আবেদন করতে হবে ।

Back to top button