বারোমাস বাড়ির ছাদে বা বাগানে টবে এই পদ্ধতিতে ফুলকপি চাষ করলে দুই সপ্তাহে বড় বড় ফুলকপি ফলন করতে পারবেন, রইলো পদ্ধতি!

নিজস্ব প্রতিবেদন :- বর্তমানের এই পরিস্থিতি বাজারদর আকাশছোঁয়া । পেট্রোল-ডিজেলের পাশাপাশি বেড়ে চলেছে নিত্য প্রয়োজনীয় জিনিসের দাম । এই মত অবস্থায় সাধারণ মধ্যবিত্ত পরিবারের পক্ষে বাজারে গিয়ে পছন্দের জিনিস কিনে আনা তাই অসম্ভবের কাছাকাছি । তাই অনেকেই এই ধরনের পন্থা অবলম্বন করছে অর্থাৎ বাড়ির মধ্যে যদি কোন কারণে ছোট জায়গা থেকে থাকে তাহলে সেই জায়গাতে প্রয়োজনীয় শাকসবজির চাষ করার পরিকল্পনা করছে অনেকে ।এতে অনেক সময় বেঁচে যায় তার পাশাপাশি আর্থিক দিক থেকেও লাভবান হয় অনেকে।

বাড়িতে কিভাবে ফুলকপি চাষ করা যায় এই নিয়ে অনেক গবেষণা অনেকেই জানতে চেয়েছেন । সঠিক পদ্ধতি কোনটি ।কিন্তু তেমন ভাবে সঠিক পদ্ধতি এখনো পর্যন্ত জানা সম্ভব হয়ে ওঠেনি ।কারণ ফুলকপি সাধারণত মাঠে চাষ হয়ে থাকে ।সেই মাঠের মাটি আর বাড়ির মাটি সমান হয় না যেহেতু তার বাড়িতে কিভাবে অবিকল মাঠের মতন ফুলকপি চাষ করা যাবে তা অনেকেই জানতে চেয়েছেন । তাই আজকের এই প্রতিবেদনটি ।

সম্প্রতি একটি ভিডিও ইউটিউবে প্রকাশিত হয়েছে সেখানে দেখানো হয়েছে যে কিভাবে বাড়ির মধ্যে ফেলে দেওয়ার জিনিসপত্রের মধ্যে ফুলকপি চাষ করা যেতে পারে । প্রথমে ওই ব্যক্তি একটি বড় জায়গা নিয়েছে এবং তার মধ্যে দিয়েছে যে জৈব সারের একটি আস্তরণ । তারপর তার মধ্যে দিয়েছে ডিমের খোলা ।যেহেতু ডিমের খোলার মধ্যে অনেকগুলি ঘর থাকে তাই বীজ রোপন করতে সুবিধা হবে অধিক পরিমাণে ।

এরপর সে ডিমের খোলার মধ্যে বীজ দিয়ে পুনরায় জৈব সারের মাটির একটি আস্তরণ দিয়ে দেওয়া হয়েছে ।এবং সেটিকে প্রতিনিয়ত জল দিয়ে বড় করা হচ্ছে । একটি নির্দিষ্ট সময় অন্তর দেখা যাবে যে সেই বীজ অঙ্কুরিত হয়ে চারা গাছে পরিণত হয়েছে । এভাবে ধীরে ধীরে সে চারাগাছ বাড়তে থাকে এবং অবশেষে একদিন আস্ত ফুলকপির জন্ম দেয় । এভাবেই আপনি বাড়ির মধ্যে তৈরি করে ফেলতে পারবেন একদম বাজারের মতনই সুস্বাদু সুস্বাস্থ্যবান ফুলকপির ।

Back to top button