সরকারের নতুন সুকন্যা সমৃদ্ধি যোজনা! পেতে পারেন 60 থেকে 70 লক্ষ পর্যন্ত টাকা! জানুন বিস্তারিত।

নিজস্ব প্রতিবেদন :- আমাদের এই দেশে যদি কোন কারনে কোন বাড়িতে মেয়ে জন্ম নেয় তাহলে বড়োসড়ো চিন্তার ভাঁজ পড়ে যায় সেই পরিবারের অভিভাবক দের কপালে । কিন্তু কেন ? তার কারণ তাদের সুরক্ষা । ধ-র্ষণের মতো ঘটনা আমাদের সামনে উঠে আছে যার ফলে চিন্তিত হয়ে উঠছে যে সমস্ত বাড়ি অভিভাবকরা । শুধুমাত্র সুরক্ষা নয় তার পাশাপাশি পড়াশোনা বা যাবতীয় যে সমস্ত খরচ রয়েছে সেগুলো কিভাবে যোগান দেওয়া যাবে সেই ভেবে চিন্তিত হয়ে পড়েছেন মধ্যবিত্ত পরিবারে বাবা মায়েরা ।

তবে এবার সেই চিন্তা দূর করার সময় এসেছে । এবার আর বাড়ির মেয়ের পড়াশোনার জন্য খরচ করা পড়াশোনার খরচ হওয়া টাকা পয়সার জন্যে ভাবতে হবেনা । কারণ এই প্রকল্পের আওতায় এনে আপনি মেয়ের পড়াশোনার খরচ সুন্দরভাবে চালিয়ে নিতে পারবেন । এই প্রকল্পের নাম সুকন্যা সমৃদ্ধি প্রকল্প । মূলত পোস্ট অফিসে এ ধরনের প্রকল্প চালু হয়েছে । ভারতবর্ষে যে কোন জায়গাতে আপনি এইধরনের প্রকল্পের সুবিধা পেতে পারেন ।

এ প্রকল্পের আওতায় বেশ কিছু শর্ত দেওয়া আছে যেগু-লি আপনাকে মেনে নিতে হবে । তাহলে এককালীন টাকা পাবেন আপনি নির্দিষ্ট সময় পর ।যেটার মাধ্যমে আপনি আপনার মেয়ের পড়াশোনা চালাতে পারবেন আসুন জেনে নেই কিভাবে । এই প্রকল্পের শর্তসাপেক্ষে বলা হচ্ছে যে ১০ বছরের নিচে মেয়েদের জন্য এই প্রকল্পটি চালু করা হয়েছে। এবং সেই মেয়ের বয়স যখন ২১ বছর হয়ে যাবে তখন এতগুলো বছর ধরে জমানো টাকা সুদ সমেত তুলতে পারবেন একসাথে ।

তার আগে কখনোই তুলতে পারবেন না । তার পাশাপাশি আপনারা জানলে অবাক হবেন যে এই টাকাতে সরকার কোন কর নিচ্ছে না অর্থাৎ এটা কর হীন। মাত্র ২৫০ টাকা দিয়ে আপনি এই প্রকল্প শুরু করতে পারেন। এর পাশাপাশি এই প্রকল্পে তো আরও জানানো হয়েছে যে যদি কোন মেয়ে ১৮ বছর বয়সের পর বিয়ে হয়ে যায় তাহলে তিনি পুরো টাকাটা তুলে নিতে পারবেন এবং ১৮ বছর হয়ে গেলে ৫০% টাকা তোলা যাবে বলে জানা যাচ্ছে ।

এই স্কিমটি করবার জন্য আপনার যে যে কাগজপত্র প্রয়োজন পরবে সেগু-লি একবার জেনে নিন। পোস্ট অফিস বা ব্যাংকে আপনার মেয়ের জন্ম পরিচয় পত্র জমা করতে হবে। যার মাধ্যমে প্রমাণ হবে যে আপনার মেয়ের বয়স ১০ বছরের কম।এছাড়াও বাচ্চা ও বাচ্চার মাতা- পিতার পরিচয় পত্র যেমন আধার কার্ড, রেশন কার্ড, ড্রাইভিং লাইসেন্স,পাসপোর্ট প্রভৃতি জমা করাতে হবে সাথে ঠিকানার প্রমাণপত্র জমা করাতে হবে। একটা বাচ্চার জন্য একটাই অ্যাকাউন্ট খোলা যাবে।

Back to top button