শ্রাবন্তীর লজ্জাজনক হারে খুব খুশি স্বামী রোশন, “শ্রাবন্তী লজ্জায় মুখ বন্ধ রেখেছেন”,- বললেন রোশন, ভাইরাল ভিডিও!

নিজস্ব প্রতিবেদন :- ব্যক্তিগত জীবন তার সুন্দর এবং ম-সৃণ চলছিল । অভিনয় জগত চলছিল তার সাথে সাথে । কিন্তু হঠাৎ করেই চিত্রটা কেমন করে জানি পাল্টে গেল । ম-নো-মা-লিন্যে জে-রে পরপর তিনটি সম্পর্ক ভে-ঙ্গে যাওয়া তে শ্রাবন্তীর উপর রাগ চাপতে শুরু করলো সাধারণ মানুষের । অবিশ্বাস করতে শুরু করলো তাকে । তার পাশাপাশি অভিনয় জগত তেমনভাবে আর ম-সৃন হয়ে উঠতে পারল না । তারি মাঝে শ্রাবন্তী চ্যাটার্জী যুক্ত হলেন ভারতীয় জনতা পার্টিতে । যে দলকে এই বাংলার মানুষ বাংলা বি-রোধী দল হিসেবে চেনেন সেই দলে যোগ দেওয়ার পর থেকেই শ্রাবন্তী হারাতে শুরু করলো তার বিপুল সংখ্যক অনুগামীদের কে ।

২০২১ এ হা-ইভো-ল্টেজ বিধানসভার ফলাফল এর দিকে তাকিয়েছিল প্রত্যেকে ।কারণেই বিধানসভা ভোটের ফলাফল নির্ধারণ করে দিতো যে বাংলা আদতে বাঙালি থাকতে চলেছে নাকি বহিরাগতদের হাতে চলে যেতে চলেছে । তবে সবকিছুর অবসান ঘটিয়ে বাংলা বাঙালির হাতেই থাকলো । শাসন ক্ষমতা নিজের হাতেই থাকলো । তবে লজ্জাজনকভাবে হারতে হলো শ্রাবন্তী চ্যাটার্জী কে।

বেহালা পশ্চিম বিজেপির প্রার্থী হয়েছিলেন তিনি এবং তিনি নিজেকে বেহালা পশ্চিম এলাকার ঘরের মেয়ে হিসেবে দাবি করছিলেন । তিনি আ-ত্ম-বিশ্বাসে ছিলেন যে বিপুল সংখ্যক ভোটে পার্থ চট্টোপাধ্যায় বি-রুদ্ধে জয়লাভ করবে । কিন্তু উল্টো চিত্র দেখা গেল ভোটের ফলাফলের দিন । ৫০ হাজারের বেশি ভোটের ব্যবধানে গো হা-রা হে-রে গেলেন শ্রাবন্তী চ্যাটার্জী । যদিও তার সম্পর্কের পর থেকে তার কোনো প্রতিক্রিয়া পাওয়া যায়নি । কিন্তু প্রতিক্রিয়া মিলেছে তার প্রাক্তন স্বামী থেকে ।

রোশন যদিও একেবারে নাম ধরে প্রত্যক্ষভাবে কিছু উল্লেখ করেনি । কিন্তু ইঙ্গিতপূর্ণ ভাবে তিনি এই কথাটি শ্রাবন্তীকে বোঝাতে চেয়েছেন । তিনি বলেছেন এমনটা হবারই ছিল । আফটার অল রাজনীতিতে সবার জন্য নয় । অর্থাৎ তিনি ইঙ্গিতপূর্ণ ভাবে শ্রাবন্তীকে বোঝাতে চেয়েছেন সেটা আর বলার অপেক্ষা রাখে না । তার পাশাপাশি শ্রাবন্তীর হারে তিনি যে খুশি হয়েছেন সেটিও অনুমান করা যেতেই পারে ।কারণ সম্প্রতি রোশন কে দেখা যাচ্ছে খুশির মে-জাজে বিভিন্ন ধরনের ছবি এবং ভিডিও পোস্ট করতে এবং অপরদিকে শ্রাবন্তী চুপচাপ হয়ে গেছে আগের থেকে । তাহলে কি রোশন প্রচন্ড খুশি শ্রাবন্তীর হেরে যাওয়াতে ? উত্তর খুঁজে নেটিজেনরা।

Back to top button