ভো-টে জিতে দারুণ আনন্দে আ-ত্মহা’রা অভিনেতা কাঞ্চন মল্লিক, তু-মু’ল ভাইরাল ভিডিও!

নিজস্ব প্রতিবেদন :- এবারের বিধানসভা ভোটের দিকে তাকিয়েছিল রাজ্যবাসী । কারণ এই বিধানসভা ভোটে হা-ড্ডাহা-ড্ডি ল-ড়াই হতে চলেছিল সেটা অনুমান করতে পেরেছিলাম আমরা প্রত্যেকেই । একদিকে বি-রোধী দল বিজেপি ম-রিয়া হয়ে উঠেছিল বাংলার ক্ষ-মতা দখ-লের জন্য । কিন্তু অপরদিকে বিনা যুদ্ধে এক ইঞ্চি জমি ছাড়তে না-রাজ ছিল তৃণমূল কংগ্রেস । এরই মাঝে সংযুক্ত মোর্চা অর্থাৎ বাম কংগ্রেস এবং আই এস এফ এর মিলিত জোট সংযুক্ত মোর্চা মাথাচাড়া দিয়ে উঠছিল । সকলে মনে করছিলেন যে এবারে হয়তো বিপুলসংখ্যক আসন জয়লাভ করতে পারে বামপন্থীরা । কিন্তু বাস্তব চিত্রটা একদমই অন্যরকম।

ভোটের আগে একাধিক হিংসা মূলক বার্তা পাঠানোর জন্য এই বাংলার মানুষ বিজেপিকে -অপছন্দ পড়তে শুরু করল । তার পাশাপাশি বিভিন্ন হিং-সা মূ-লক কা-জ ক-র্ম করার জন্য বাংলার মানুষ ঠিক করে নেয় যে পুনরায় তৃণমূল কংগ্রেসকে ক্ষমতার আসনে বসাবেন । এবং বিপুল ভোটে জয় যুক্ত হয়েছেন অধিকাংশ প্রার্থীই । কোন কোন প্রার্থী জয়লাভ করতে পারেনি কিন্তু তাদের প্রচার মুগ্ধ করে তুলেছে সেখানকার এলাকাবাসীকে ।এমনটা জানা যাচ্ছে সূত্রের মারফত।

এবারে বিধানসভা ভোটে উল্লেখযোগ্য বিষয় হলো প্রার্থী । কারণ যেখানে বিজেপি গোটা রাজ্য জুড়ে ২৯৪ টি আসনের প্রার্থী দিতে হিমশিম খাচ্ছে সেখানে কিন্তু তৃণমূল কংগ্রেস কৌশলের সাথে একের পর এক জায়গায় তাবড় তাবড় প্রার্থী দিয়ে চলে ছিলেন । টলিপাড়ার সাথে তৃণমূলে যোগ বহুদিনের । তবে কোথাও যেন এই চিত্রটা এবারে বিধানসভাতে খুব পরিস্কার হয়ে ফুটে উঠল । একাধিক তারকার যোগ দিয়েছিলেন ভোটের আগে তৃণমূল কংগ্রেসে । তাদের মধ্যে কেউ কেউ আবার প্রার্থী হয়েছিলেন যেমন ধরুন কৌশানী মুখার্জী সায়নী ঘোষ অদিতি দাশমুন্সি কাঞ্চন মল্লিক সোহম চক্রবর্তী প্রমুখ ।

ভোটের ফলাফল ঘোষণা হওয়ার পরেই উ-চ্ছ্বাসে ফে-টে প-ড়ে তৃণমূল কর্মীরা । এবং সাংবাদিকদের মাধ্যমে তারা তাদের জয় বা আনন্দের অনুভূতি প্রকাশ করে থাকেন ।যেমন কাঞ্চন মল্লিক সোহম চক্রবর্তীকে সেদিন আনন্দে আত্মহারা হতে দেখা গেল । তারা জানালেন যে হিংসার রাজনীতি নয় বরং উন্নয়নের রাজনীতি করতে তারা যোগ দিয়েছেন তৃণমূল কংগ্রেসের ।এবং মাননীয় মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ধরনের রাজনীতিতে বিশ্বাস করেন ।

Back to top button