খুব সাবধান! অভিনব কায়দায় যুবতীকে বোকা বানিয়ে স্কুটি চুরি করে নিয়ে পালাল যুবক! তুমুল ভাইরাল হল ভিডিও।

নিজস্ব প্রতিবেদন:-বর্তমান সময়ে প্রযুক্তি অনেকখানি উন্নত হয়েছে । তার পাশাপাশি উন্নত হয়েছে মানুষের চিন্তা-ভাবনা ।আগেকার যুগের তুলনায় বর্তমান যুগের মানুষেরা কিন্তু অনেকখানি এগিয়ে রয়েছে ।তার পাশাপাশি সামাজিক ভাবে সচেতন হয়েছে অনেকখানি কিন্তু এরই সাথে সাথে চুরি করার ধরন পাল্টে গেছে । এখন আর মানুষের চোখের আড়ালে নয় বরং তারই সামনে থেকে তাকে বোকা বানিয়ে চুরি করা সম্ভব ।

একদম ঠিক শুনেছেন এই ঘটনাটি দেখা গেল এই ভিডিওর মাধ্যমে ।আগেকার যুগে রাত হলে নেমে আসতো চোরের উপদ্রব । ভিড় বাজারে কিংবা দিনের বেলা চুরি করার কথা পরিকল্পনা করতে পারতোনা চোরেরা ।কিন্তু সময়ের সাথে তাল মিলিয়ে মিলিয়ে পাল্টেছে চুরি করার ধরণ । এখন আর রাত্রেবেলা নয় বরং দিনের বেলাতেই চুরি করা সম্ভব হয়ে উঠছে তাদের পক্ষে ।

এবং সম্প্রতি যে ঘটনাটি সম্পর্কে আজকের প্রতিবেদনটি সে ঘটনাটি রাস্তার ধারে থাকে একটি সিসিটিভি ক্যামেরা তে ধরা পড়েছে যেটি সোশ্যাল মিডিয়াতে প্রকাশ হওয়ার পর রীতিমত অবাক হয়েছে দুনিয়ার প্রতিটি মানুষ ।সম্প্রতি এমনই এক গাড়ি চুরির ঘটনা সামনে এসেছে। যার ভিডিও সোশ্যাল মিডিয়াতে ব্যাপক ভাবে ভাইরাল হয়ে পড়েছে।

সম্প্রতি ভাইরাল হওয়া ভিডিওতে দেখা যাচ্ছে রাস্তার ধরে একটি স্কুটি দাঁড়িয়ে থাকতে দেখে নজর পড়েছে চোরের। কাছে গিয়ে দেখে স্কুটিতে চাবি দেওয়া আছে। তারপরেই মাথায় বুদ্ধি খাটায় চোর বাবাজি। স্কুটির সাইলেন্সারের মধ্যে পকেট থেকে রুমাল বের করে গুঁজে দেয়। যাতে স্কুটি স্টার্ট দিলেও চালু না হয়।এরপর সেখান থেকে সরে পরে চোর। তার কিছুক্ষণ পর স্কুটির মালকিন হাজির হয়। কিন্তু সাইলেন্সারের মুখে রুমাল গুঁজে দেওয়ায় স্টার্ট দিতে গিয়ে সমস্যা হয়।

কেন স্টার্ট হচ্ছে না স্কুটি কিছু বুঝে ওঠার আগেই সেখানে পথচলতি মানুষ হিসাবে হাজির হয় ওই চোর। এসে প্রস্তাব দিয়েছে গাড়ি স্টার্ট দিতে সাহায্য করার। মহিলা রাজি হতেই গাড়ি চেকিংয়ের ভান করতে থাকে প্রথমে।এরপর মহিলা একটু অন্যমনস্ক হতেই সাইলেন্সারের মুখ থেকে রুমাল খুলে ফেলে দেয়। আর তারপরেই স্কুটি স্টার্ট দিয়ে সেখান থেকে চম্পট দেয়। ইতিমধ্যে ভিডিওটি ব্যাপক পরিমাণে ভাইরাল হয়েছে সাইবার দুনিয়াতে ।

Back to top button